ইসিটিঃ ভুল ধারনা এবং বাস্তব

বিজ্ঞান সম্পর্কে যথেষ্ট জ্ঞ্যান না থাকার কারণে লোকের এই চিকিৎসা পদ্ধতি সম্বন্ধে বিভিন্ন ভুল ধারণা আছে।

ভুল ধারনাঃ ইসিটি রোগীর স্মৃতি নষ্ট করবার জন্যে দেওয়া হয়।
বাস্তবঃ কোনও কোনও ক্ষেত্রে বৈদ্যুতিক প্রবাহের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ফলে সাম্প্রতিক ঘটনা ভুলে গেলেও অধিকাংশ ক্ষেত্রেই তা আমাদের স্মৃতির ওপর কোনও প্রভাব ফেলে না।

ভুল ধারনাঃ  মানসিক রোগের চিকিৎসা কেন্দ্রে ভর্তি হলে রোগীর অজান্তে তাঁকে বিদ্যুতের শক দেওয়া হয়।
বাস্তবঃ রোগী ও রোগীর পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করার পরে তাঁদের অনুমতি নিয়েই ইসিটি দেওয়া হয়ে থাকে।

ভুল ধারনাঃ  এটি একটি বীভৎস যন্ত্রণাদায়ক অভিজ্ঞতা।
বাস্তবঃ চিকিৎসা চলাকালীন যাতে রোগী কোনও রকম যন্ত্রণা না পান তাই তাঁকে অ্যানেস্থেশিয়া দেওয়া হয়।

ভুল ধারনাঃ  ইসিটির ফলে আমাদের বুদ্ধি ও ব্যাক্তিত্ব প্রভাবিত হয়।
বাস্তবঃ আমাদের ব্যাক্তিত্ব ও বুদ্ধিমত্তায় ইসিটির কোনও প্রভাব পরে না।

ভুল ধারনাঃ  ইসিটি শাস্তি স্বরূপ দেওয়া হয়ে থাকে।
বাস্তবঃ ইসিটি কোনও শাস্তি না। এটি একটি যন্ত্রনাবিহীন চিকিৎসা পদ্ধতি।

ভুল ধারনাঃ  যখন অন্য কোনও চিকিৎসায় ফল পাওয়া যায়না, তখন মনোবিদ ইসিটির আশ্রয় নেন। বাস্তবঃ অন্যান্য চিকিৎসার পাশাপাশি সেই মুহুর্তে রোগীর মঙ্গলের কথা মাথায় রেখে চিকিৎসক ইসিটির পরামর্শ দিয়ে থাকেন। তবে রোগী সেই ব্যাপারে অনিচ্ছুক থাকলে চিকিৎসক অন্যান্য পদ্ধতিতেও চিকিৎসা করে থাকেন।

ডাঃ প্রীতি সিন্‌হা, ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড নিউরোসায়েন্সস (নিমহ্যান্স), ব্যাঙ্গালোর দ্বারা সংকলিত।


আরও পড়ুন