We use cookies to help you find the right information on mental health on our website. If you continue to use this site, you consent to our use of cookies.

সাধারণ জিজ্ঞাস্য

আইনি প্রশ্নোত্তরঃ মনরোগীদের শিক্ষার অধিকার ও অবস্থান

আমার সন্তান মানসিকভাবে অসুস্থ হলে, তাকে কী কোনও পাশ্ববর্তী স্কুলে ভর্তি করা যাবে?

নিশ্চয়ই ভর্তি করা যাবে। ভারতীয় সংবিধানের ২১-এ ধারায় একথাটি খুব স্পষ্টভাবেই উল্লেখ আছে যে, শিক্ষা প্রত্যেকেরই মৌলিক অধিকার। এই অধিকারের কথা 'শিক্ষার অধিকার সংক্রান্ত আইন', (আর টি ই) ২০০৯-এ আরও বিশদভাবে বর্ণনা করা হয়েছে। প্রত্যেকটি শিশুর ৬-১৪ বছরের বয়সের মধ্যে শিক্ষাকে নিঃশুল্ক এবং আবশ্যক করা সহ পাশ্ববর্তী স্কুলে ভর্তি করার বিশেষ অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে।   

 

যদি আপনার শিশুকে মানসিকভাবে অক্ষমের কথা নিশ্চিতভাবে জানানো হয়ে থাকে এবং এই কথাটি যদি পারসন্‌স উইথ ডিস্‌এবিলিটিশ অ্যাক্টে (পি ডবলু ডি, অ্যাক্ট) ১৯৯৫-এর আওতায় লেখা থাকে তাহলে ১৮ বছর বয়স পর্যন্ত আপনার শিশু নিঃশুল্ক শিক্ষা পাবে। 

মানসিকভাবে অসুস্থ থাকলে, সেই শিশুদের জন্য কী আলাদাভাবে কোনও স্কুলের ব্যবস্থা আছে?

সংবিধানের ধারা ২৬(বি), পি ডবলু ডি, অ্যাক্টের আওতায় এই ব্যাপারে নির্দিষ্টভাবে নির্দেশ দেওয়া আছে যে, সরকার এবং স্থানীয় প্রসাশনকে সচেতনভাবে উদ্যোগ নিয়ে একথা নিশ্চিত করতে হবে যে মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের উৎসাহিত করে নিয়মিত স্কুলে পাঠানোর ব্যবস্থায় তাঁরা বদ্ধপরিকর। 

যদি মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের জন্য বিশেষভাবে শিক্ষার ব্যবস্থার প্রয়োজন আবশ্যক হয় এবং এই শিক্ষার ব্যবস্থা যদি স্কুলগুলিতে না থাকে তাহলে মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের শিক্ষা কোথায় হবে?

সরকার এবং স্থানীয় প্রসাশনের উপর এই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে যে, তাঁরা যেন নির্দিষ্টভাবে এই প্রয়োজনের কথা মাথায় রেখে মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের জন্য স্কুলের ব্যবস্থা করেন। পি ডবলু ডি, অ্যাক্টের ২৬(সি) ধারার আওতায় উপরোক্ত কথার উল্লেখ রয়েছে এবং পাশাপাশি ২৬(ডি) ধারার আওতায় একথাও উল্লেখিত যে, বিশেষ শিক্ষা ব্যবস্থার জন্য স্কুলে ভোকেশনাল ট্রেনিং-এর ব্যবস্থাও পাকাপাকি ভাবে রাখা হয় যাতে শিশুরা জীবনকে সহজভাবে বুঝতে ও জানতে পারে।  

মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের জন্য আর কী কোনও বিশেষ শিক্ষার ব্যবস্থা আছে?

মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের শিক্ষায় যাতে ব্যাঘাত না ঘটে সেজন্য একাধিক বিশেষ ব্যবস্থা রয়েছে। যদি কোনও শিশু স্কুলে যেতে না পারে অসুস্থতার কারণে, সে ক্ষেত্রে সরকার সেই শিশুর জন্য শিক্ষার ব্যবস্থা করতে বাধ্য। পি ডবলু ডি, অ্যাক্টের ২৭ ধারায় এই বিশেষ ব্যবস্থার কথা উল্লেখ করে বলা হয়েছে যে, মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের জন্য সরকারকে মুক্ত বিদ্যালয় এবং বিশ্ববিদ্যালয়েরও নির্মান করতে হবে। এছাড়াও এই শিশুরা যাতে বিশেষভাবে শিক্ষা গ্রহণ করতে পারে সেজন্য বিশেষভাবে তৈরী বই সহ অন্যান্য সামগ্রীও যাতে নিঃশুল্কভাবে পেতে পারে সে ব্যবস্থাও সরকার করবে। 

সাধারণ স্কুলগুলিতে কী শিক্ষিকাদের মানসিকভাবে অসুস্থ শিশুদের পড়ানোর অভিজ্ঞতা রয়েছে?

না, সাধারণ স্কুলগুলিতে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের হয়ত এই অভিজ্ঞতা নেই। তবে পি ডবলু ডি, অ্যাক্টের ২৯ ধারার বলা হয়েছে যে সরকার এই শিশুদের শিক্ষার জন্য শিক্ষকদের বিশেষভাবে ট্রেনিং দিয়ে 'স্পেশাল স্কুলে' নিযুক্ত করবেন। এই স্পেশাল স্কুলগুলি বহু রাজ্যেই রয়েছে এবং এখানে বহু সংখ্যক শিক্ষক ও কর্মচারী কার্যরত যারা শিশুদের শিক্ষা ব্যবস্থায় যাতে ত্রুটি না ঘটে সেজন্য যথেষ্ট সচেতন।